নির্বাচনে জনগণ হাসিনার সমৃদ্ধির রাজনীতিকেই বেছে নেবে’

শনিবার, নভেম্বর ১৩, ২০২১

বিএনপি সাম্প্রদায়িক অপশক্তি আর ধর্মের ওপর ভর করে ক্ষমতায় যেতে চায় বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুন্ত্রী ওবায়দুল কাদের৷

আগামী জাতীয় নির্বাচনে জনগণ শেখ হাসিনার উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির রাজনীতিকেই বেছে নেবে বলেও তিনি মন্তব্য করেন ৷
শনিবার(১৩ নভেম্বর) সকালে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের তার বাসভবনে ব্রিফিংকালে এ মন্তব্য করেন৷

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগ হিংসা নয়, আওয়ামী লীগ সহিষ্ণুতার রাজনীতিতে বিশ্বাসী। জনগণের অধিকার প্রতিষ্ঠার রাজনীতিতে বিশ্বাসী আওয়ামী লীগ, অন্যদিকে বিএনপি সাম্প্রদায়িক অপশক্তি আর ধর্মের ওপর ভর করে ক্ষমতায় যেতে চায়।

জনগণ বিএনপির অপরাজনীতি সম্পর্কে সচেতন, আর সেজন্যই তারা পদে পদে ব্যর্থ হচ্ছে।
দেশে অশান্তির আগুন জ্বলছে- বিএনপি মহাসচিবের এমন বক্তব্য প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপি নেতারা দেশের কোথাও শান্তি খু্ঁজে পাচ্ছে না,দেশের সর্বত্র নাকি অশান্তির আগুন দেখতে পায় ৷ আসলে অশান্তির আগুন দেশে নয়, অশান্তির আগুন জ্বলছে এখন বিএনপির আপন ঘরে।

এ আগুন বিএনপির ক্ষমতা ফিরে পাওয়ায় আগুন, এ আগুন আন্দোলন-নির্বাচনে ব্যর্থতা থেকে হতাশার আগুন।
তিনি বলেন দেশের মানুষের চোখের ও মনের ভাষা যারা বোঝে না,যারা ক্ষমতাকে ভোগের এবং বিলাসিতার বাহন মনে করে তাদের বুকেই জ্বলছে অশান্তির দহন।

বিএনপি ক্ষমতার লোভে চরম অশান্তিতে রয়েছে, রয়েছে রাজনৈতিক সিদ্ধান্তহীনতায় ও অস্থিরতায়। বিএনপি এখন টিকে আছে ভার্চ্যুয়াল জগতে ৷
রাজনৈতিক দলগুলোকে নিয়ে বিএনপি নেতারা যে ঐক্যের কথা বলছেন সে প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, নির্বাচন এলে নেতাদের নিয়ে ঐক্য দেশবাসী দেখেছে, এসব ঐক্য কাগজেই সীমাবদ্ধ।

নেতায় নেতায় ঐক্য দিয়ে কী লাভ আওয়ামী লীগ এসবকে ভয় পায় না,ভয় দেখিয়ে লাভ নাই। আগামী জাতীয় নির্বাচনে জনগণ শেখ হাসিনার উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির রাজনীতিকেই বেছে নেবে ইনশাআল্লাহ।
আওয়ামী লীগ প্রতিহিংসার রাজনীতিতে বিশ্বাসী নয় উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, জন্মলগ্ন থেকে এদেশে প্রতিহিংসার রাজনীতি বিএনপিই চর্চা করে আসছে। প্রতিহিংসা, ষড়যন্ত্র আর সন্ত্রাসের ওপর বিএনপির রাজনীতি প্রতিষ্ঠিত ।